Campus

জাবি অধ্যাপকের বিরুদ্ধে নীতি ভঙ্গের অভিযোগ

জাবি প্রতিনিধি

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ সাজ্জাদুল ইসলামের (সুমন সাজ্জাদ) বিরুদ্ধে দায়িত্ব পালনের নৈতিকতা ও বৈধতা প্রসঙ্গে অভিযোগ তুলেছেন একই বিভাগের অধ্যাপক ড. নাজমুল হাসান তালুকদার।

এবিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য অনুরোধ জানিয়ে গত ১৯ মার্চ জাবি রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) ও সিন্ডিকেট সচিব বরাবর অভিযোগপত্র জমা দিয়েছেন তিনি।

অভিযোগপত্রে বলা হয়, গত ১৬ ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিত বোর্ড অব অ্যাডভান্সড স্টাডিজ এবং শিক্ষা পর্ষদের সভায় উপস্থিত থেকেও একই সময়ে অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ সাজ্জাদুল ইসলাম (সুমন সাজ্জাদ) বাংলা বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের চূড়ান্ত পরীক্ষায় ২০২ নং কোর্সের প্রধান পরিদর্শকের দায়িত্ব পালন করেন যা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইনে নীতি নৈতিকতা পরিপন্থী। বিশ্ববিদ্যালয়ের অত্যন্ত উচ্চ পর্যায়ের দুটি সভায় উপস্থিত থেকে এবং সেখান থেকে নগদ সম্মানী গ্রহণ করেও একই সময়ে কোন ব্যক্তি অন্য আরেকটি দায়িত্ব পালন ও সেখান থেকে সম্মানী গ্রহণ করতে পারেন না।

অধ্যাপক নাজমুল হাসান অভিযোগপত্রে আরও উল্লেখ করেন, “উল্লিখিত পরীক্ষায় সেদিন আমারও পরিদর্শকের দায়িত্ব পালন করার কথা ছিলো। কিন্তু বোর্ড অফ অ্যাডভান্সড স্টাডিজ এবং শিক্ষা পর্ষদের সভায় উপস্থিত থাকায় বিধি মোতাবেক আমি এই দায়িত্ব পালন থেকে বিরত থেকেছি। তাহলে অধ্যাপক সাজ্জাদ কিভাবে প্রধান পরিদর্শকের দায়িত্ব পালন করতে পারেন? আসলে এক্ষেত্রে অধ্যাপক সাজ্জাদ প্রধান পরিদর্শকের সম্মানী প্রাপ্তির লোভ সংবরণ করতে পারেন নি, তাই এ সংক্রান্ত নীতি-নৈতিকতা ও বৈধতা জলাঞ্জলি দিয়ে চৌর্যবৃত্তির আশ্রয় নিয়েছেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন অধ্যাপকের কাছ থেকে আমরা কেউই এধরণের অনৈতিকতা ও চৌর্যবৃত্তি প্রত্যাশা করি না।’

এবিষয়ে অভিযুক্ত সাজ্জাদুল ইসলাম বলেন, “সেদিন আমি আমার এম. ফিলের শিক্ষার্থীর জন্য বোর্ড অফ অ্যাডভান্সড স্টাডিজ সভায় উপস্থিত ছিলাম। আমি যদি ঐ সভায় উপস্থিত না হতাম তবে আমার শিক্ষার্থী তার ডিগ্রী পেত না। আর পরীক্ষার হলে দায়িত্ব পালন করেছি কারণ পূর্ব থেকেই আমার দায়িত্ব নির্ধারিত ছিলো। যদি পরীক্ষার হলে দায়িত্ব পালন না করতাম তবে আমার দায়িত্ব পালনে অবহেলা করা হতো।”

এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিস্টার রহিমা কানিজের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেও যোগাযোগ সম্ভব হয়নি।

এ জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
You cannot copy content of this page
Close
Close